প্রতিবাদে লুঙ্গি পরে সিনেপ্লেক্সে যাচ্ছেন তরুণরা

‘পরাণ’ দেখবেন বলে সিনেমা হলে এসেছিলেন এক বৃদ্ধ। তবে লুঙ্গি পরার কারণে নাকি তাকে টিকিট দেয়া হয়নি। গতকাল বুধবার (৩ আগস্ট) রাজধানীর মিরপুরে অবস্থিত স্টার সিনেপ্লেক্সের সনি স্কয়ার শাখায় ঘটেছে এমন ব্যতিক্রম এক ঘটনা। ইতিমধ্যে ওই বৃদ্ধের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ইতিমধ্যে বিষয়টি নিয়ে তোপের মুখে ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’ কর্তৃপক্ষ। বৃদ্ধকে ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’ মিরপুর সনি স্কয়ার শাখায় লুঙ্গি পরায় টিকিট না দেয়ার প্রতিবাদে সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। এমন ঘটনায় ফেসবুকে ক্ষোভ ঝেড়েছেন অনেকেই!

বিষয়টি শেয়ার করেন ‘পরাণ’ ছবির পরিচালক রায়হান রাফি, চিত্রনায়ক শরিফুল রাজ ও নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিমসহ অনেকেই। ইতিমধ্যে বৃদ্ধকে অবজ্ঞা করার প্রতিবাদে অনেকেই লুঙ্গি পরে স্টার সিনেপ্লেক্সে যাচ্ছেন। ফেসবুকে এ সংক্রান্ত বেশ কিছু ছবি ও পোস্ট পাওয়া গেছে।

এর প্রতিবাদে এবার রাজধানী মিরপুরের একদল তরুণ বৃহস্পতিবার দুপুরে লুঙ্গি পরে স্টার সিনেপ্লেক্সের সনি স্কয়ারে সিনেমা দেখতে যান। প্রথমে তাদেরকে টিকিট কাউন্টারে যেতে না দিলেও একসময় কতৃপক্ষ তাদেরকে টিকিট দিতে বাধ্য হন। টিকিট কেনার পর তারা দলবেঁধে ছবিও তুলেন এবং সেটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করেন।সেখানে মাশনুন নামের একজন লিখেন, উই ভাইব! প্রোটেস্ট এগেইনস্ট কালচারাল ডিসক্রিমিনেশন।

তিনি আরও লিখেন, তারা প্রথমে লুঙ্গি দেখে স্টার সিনেপ্লেক্সে প্রবেশ করতে না দিলেও পরবর্তীতে সংখ্যা দেখে হার মানতে বাধ্য হয়। দেশের মাটিতে সংস্কৃতির অবমূল্যায়ন, মানবো না মানবো না!

প্রসঙ্গত, গতকাল বুধবার (৩ আগস্ট)‘পরাণ’ সিনেমা দেখার জন্য হলে গিয়েছিলেন এক দর্শক। টিকিটি না পেয়ে দাঁড়িয়েছিলেন। এ সময় এক যুবকের সঙ্গে কথা হয় তার। বয়স্ক ওই ব্যক্তি বলেন—‘আমি লুঙ্গি পরে আইছি এইজন্য আমার কাছে টিকিট বিক্রি করে নাই।’ পরে সিনেমা না দেখে ফিরে যান ওই ব্যক্তি। এ ঘটনার একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়।

এ ঘটনার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় সোচ্ছার হন নেটিজেনরা। তোপের মুখে পরে বুধবার (৪ আগস্ট) সকালে ফেসবুক স্ট্যাটাসে বিষয়টি নিয়ে দুঃখ প্রকাশ করে তারা। স্টার সিনেপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ জানায়, লুঙ্গি পরিহিত কোনো ব্যক্তির কাছে টিকিট বিক্রি করা যাবে না, এ ধরণের কোনো পলিসি আমাদের প্রতিষ্ঠানে নেই। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়েপড়া ভিডিওর ঘটনাটি সম্ভবত ভুল বোঝাবুঝি থেকে হয়েছে। এ ঘটনার জন্য আমরা মর্মাহত। আমরা এ ঘটনার তদন্ত করছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.