Breaking News

ফূর্তির জন্য মাসে ত’রুণীদের যে বেতনে রাখতেন নাসির

অভিনেত্রী পরীমণির মা’মলার প্রধান আ’সামি ও ঢাকা বোট ক্লাবের সদস্য নাসির উদ্দিন মাহমুদ প্রায় চার দশক ডেভেলপার ব্যবসায় যুক্ত রয়েছেন। দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, নাসির উদ্দিন কুঞ্জ ডেভেলপার্স লিমিটেডের চেয়ারম্যানের পদেও আছেন।তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সয়েল, ওয়াটার অ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট বিভাগ থেকে পড়াশোনা করেন। নাসির ও তার প্রতিষ্ঠান সরকারের গণপূর্ত অধিদফতর, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতর (এলজিইডি), শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতর (ইইডি), রাজউক, রেলওয়েসহ সরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ঠিকাদারি কাজ করেন।নাসির

উদ্দিন মাহমুদ বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব কনস্ট্রাকশন ইন্ডাস্ট্রির (বিএসিআই) সাবেক নির্বাহী পরিষদের সদস্য। তিনি ২০১৫, ২০১৬ এবং ২০১৭ সালের উত্তরা ক্লাবের নির্বাচিত সভাপতি এবং লায়ন ক্লাবের ঢাকা জোনের চেয়ারম্যান ছিলেন।এছাড়াও নাসির জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রেসিডিয়াম সদস্য। ২০২০ সালের ২৮ ডিসেম্বর জাপার নবম কাউন্সিলে তিনি দলটির এই পদ পান। অ’ভিযোগের ব্যাপারে জানতে চাইলে রোববার রাত থেকে নাসিরের ফোন ব’ন্ধ পাওয়া যায়।তবে সোমবার উত্তরার ১ নম্বর সেক্টর থেকে গ্রে’প্তারের পর গাড়িতে তোলার সময় নাসির

সাংবাদিকদের কাছে নিজেকে নি’র্দোষ দা’বি করে বলেন, ‘ঘ’টনার রাতে আমি যখন ক্লাব থেকে বের হই তখন পরীমণি ও তার বন্ধুরা ক্লাবে ঢোকেন। তারা তখন ম’দ্যপ অবস্থায় ছিল।
তাদের মধ্যে একটি ছেলে উচ্ছৃঙ্খল ছিল। ক্লাবে ঢোকার পর আমাদের বারের কা’উন্টার থেকে দামি ড্রিংকসের বোতল জো’র করে নেওয়ার চে’ষ্টা করেন তারাতখন আমি তাদের কাছে গিয়ে বলি, আপনারা ড্রিংকসগুলা নিতে পারেন না। আমি তাদের বাঁ’ধা দিই। তারপর আমি আমার সি’কিউরিটিদের ডাক দিই। নি’রাপত্তার’ক্ষীরা এসে তাদের নিয়ে যায়।’এদিকে সোমবার ঢাকাই ছবির নায়িকা

পরীমণির মা’মলার প্রধান আ’সামি ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও তুহিন সিদ্দিকী অমিসহ পাঁচজনকে গ্রে’ফতার করেছে পু’লিশ। এর মধ্যে তিনজন না’রী রয়েছেন। পু’লিশ জানিয়েছে, ফূর্তির জন্য মাসিক টাকা দিয়ে না’রীদের রাখতেন নাসির ইউ মাহমুদ।তিনি ১৮-১৯ বছর বয়সী উঠতি ত’রুণীদের ভাড়া করে এনে বাসায় রাখতেন। এদের মধ্যে কাউকে ৩০ হাজার, কাউকে
৪০ হাজার টাকা দিয়ে ভাড়া করতেন তিনি। এসব ত’রুণীদের বিভিন্ন ক্লাবে এবং নিজের গো’পন বাসায় নিয়ে গিয়ে ফুর্তি করতেন নাসির।সোমবার দুপুরে উত্তরা ১ নম্বর সেক্টরের ১২ নম্বর

রোডের একটি বাসা থেকে তাদের গ্রে’ফতার করে মহানগর গো’য়েন্দা (ডিবি) পু’লিশ। নাসির উদ্দিন ও অমি ছাড়া গ্রে’ফতার অন্য তিন না’রী হলেন, লিপি আক্তার (১৮), সুমি আক্তার (১৯) ও নাজমা আমিন স্নিগ্ধা (২৪)।এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডিবির যুগ্ম কমিশনার হারুন অর রশীদ বলেন, এটা অমির বাসা। পরীমণির সংবাদ সম্মেলনের পর থেকে নাসির তার তিন র’ক্ষিতাকে নিয়ে এ বাসায় পা’লিয়ে ছিলেন। মা’দক রাখার অ’ভিযোগে সে তিন জনকেও আমরা গ্রে’ফতার করেছি।ওই বাসাটিতে অ’ভিযান পরিচালনার সময় বিভিন্ন ব্যান্ডের বিদেশি ম’দ-বিয়ার

ও ১ হাজার পিচ ই’য়াবা উ’দ্ধার করা হয়। পু’লিশ জানিয়েছে গ্রে’ফতার মে’য়েদের দেখানো জায়গা থেকে এসব মা’দক উ’দ্ধার করা হয়।নাসির প্রসঙ্গে তিনি বলেন, নাসিরের বি’রুদ্ধে আগেও মা’মলার আ’সামি হয়েছিলেন। নানা অ’ভিযোগে তাকে উত্তরা ক্লাব থেকে ব’হিষ্কার করা হয়েছে বলে জেনেছি। কেউ তার বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগ করলে আমরা সেগুলোর ত’দন্ত করব।পরীমণি ক্লাবের সদস্য না হয়ে সেখানে যাওয়ার বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে যুগ্ম কমিশনার বলেন, সে (পরীমণি) স্বনামধন্য নায়িকা। ওখানে (বোট ক্লাব) যেতেই পারেন। গেলে যে তাকে ওখানে

হ্যা’রেজ (হয়’রানি) করবে সেটা ঠিক না।আ’সলে কী ঘ’টেছে তা বিস্তারিত ত’দন্ত করে বলতে পারব। তিনি বলেন, এই ঘ’টনা নিয়ে রোববার রাতে সংবাদ সম্মেলন করেন পরীমণি। সংবাদ সম্মেলনের পরপরই আমরা অ’ভিযানের প্রস্তুতি নিয়েছিলাম, তবে যেহেতু রাতে মা’মলা হয়নি, তাই আমরা অ্যা’কশনে যাইনি।সাভার থা’নায় মা’মলার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর আমরা অ’ভিযান চালিয়ে তাকে গ্রে’ফতার করি। মা’মলায় নাসিরকে সাভার থা’না পু’লিশের কাছে হস্তান্তর করা হবে। তবে বর্তমানে মা’দক উ’দ্ধারের মা’মলায় জি’জ্ঞাসাবা’দের জন্য তাকে ডিবি

কার্যালয়ে নেওয়া হয়েছে বলে জানান হারুন।শনিবার পরীমনি যে অভিযোগ করেছিলেন, সেটি থা’নায় আমলে নেওয়া হয়নি– এই বিষয়ে কী করবেন জানতে চাইলে হারুন-অর-রশিদ বলেন, ‘আমরা পরীমনি;র স’ঙ্গে কথা বলব। আমরা প্রতিটি অ’ভিযোগকে খ;তিয়ে দে;খছি। আম;রাতো এদের সা;ভার থা’নার মা’মলা থেকেই গ্রে’ফতার করেছি। যার বি’রুদ্ধে অ’ভি;যোগ করা ;হয়েছে, তাকেই গ্রে’ফতার করা হয়েছে।’ধ;র্ষ;ণ ও হ;ত্যা ;চে;ষ্টার অ;ভি;;;যো;গে ব্যবসা;য়ী না;সির উদ্দি;নসহ ৬ জ;নের বি;রু;দ্ধে; মা;ম;লার করে;ন ঢাকাই সিনেমার জন;প্রিয় অভিনে;ত্রী প;রীমণি। সোমবা;র সাভার থানা;য় মাম;টি দায়ে;র করা হয়। এর আ;গে সকালে রূপ;ন;গর ;থানার মা;ধ্যমে লিখিত অভিযোগ করেন পরীমণি।

Check Also

দৌলতপুরে ক্ষুধার জ্বালা সইতে না পেরে বৃদ্ধের আত্মহত্যা

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ক্ষুধার জ্বালা সইতে না পেরে ইদ্রস আলী (৭০) নামে এক বৃদ্ধ গলায় ফাঁস …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *