হিন্দুদের বাড়িঘরে হামলা: প্রধান আসামি যুবলীগ নেতা গ্রেফতার

সুনামগঞ্জ- সুনামগঞ্জের শাল্লায় হিন্দু সংখ্যালঘুদের বাড়িতে হামলা, লুটপাট ও ভাঙচুরের ঘটনায় দায়ের করা মামলার প্রধান আসামি যুবলীগ নেতা ও ইউপি সদস্য শহীদুল ইসলাম স্বাধীনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

শনিবার (১৯ মার্চ) দিবাগত রাত ৩টার দিকে মৌলভীবাজার জেলার কুলাউড়া থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। পিবিআই সিলেটের পুলিশ সুপার খালেদ উজ জামান এ তথ্য জানান।

তিনি জানান, নোয়াগাঁও গ্রামে হামলায় মূল আসামি স্বাধীনকে পিবিআই কুলাউড়া থেকে গ্রেফতার করেছে। তাকে সিলেটে নিয়ে আসা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত বুধবার হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম-মহাসচিব আল্লামা মামুনুল হককে নিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়াকে কেন্দ্র করে শাল্লা উপজেলার হবিবপুর ইউনিয়নের নোয়াগাঁও গ্রামের ৮৭টি সংখ্যালঘু বাড়িতে হামলা চালানো হয়। এসব বাড়ি থেকে টাকা, স্বর্ণালঙ্কার লুট হয়।

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে হবিবপুর ইউপি চেয়ারম্যান বিবেকানন্দ মজুমদার বকুল প্রথম মামলাটি করেন। এতে প্রধান আসামি করা হয় দিরাইয়ের তাড়ল ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য শহিদুল ইসলাম স্বাধীনকে।

শহীদুল ইসলাম স্বাধীনের বাড়ি শাল্লার পার্শ্ববর্তী দিরাই উপজেলার নাচনি গ্রামে। তিনি স্থানীয় ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ও ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য।

এ দিকে হামলার ঘটনায় গত বৃহস্পতিবার রাত ১২টা থেকে শুক্রবার ভোর পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন গ্রাম থেকে ২২ জনকে আটক করে পুলিশ। যাচাই-বাছাই করে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.