খাটের নিচ থেকে স্ত্রীর লাশ উদ্ধার, স্বামী আটক

ঝালকাঠির রাজাপুরে শারমিন বেগম (২৫) নামে এক নারীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর তার লাশ ঘরের খাটের নিচে লুকিয়ে রাখার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর মো. হাসানের বিরুদ্ধে। রবিবার দুপুরে উপজেলার পূর্ব বাদুরতলা গ্রামের মিলবাড়ি এলাকায় স্বামীর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ এ ঘটনায় অভিযুক্ত হাসানকে আটক করেছে।

হাসান উপজেলার পূর্ব বাদুরতলা গ্রামের মিলবাড়ি এলাকার শহিদুল ইসলামের ছেলে এবং পেশায় রিকশাচালক। শারমিন সদর উপজেলার শাচিলাপুর গ্রামের মনির খানের মেয়ে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, হাসান নেশাগ্রস্ত হওয়ায় প্রায়ই স্ত্রী শারমিনকে নানা কারণে নির্যাতন করে আসছিল। রবিবার দুপুর পারিবারিক বিরোধের জের ধরে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে হাসান তার স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে নিজ ঘরের খাটের নিচে লুকিয়ে রাখে। একটি শিশু খাটের নিচে তাকে দেখতে পেয়ে বাড়ির সবাইকে বলে। বাড়ির লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রাজাপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) গোলাম মোস্তফা জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ওই বাড়ির খাটের নিচ থেকে ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করে। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হবে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত হাসানকে সাতুরিয়া ইউনিয়নের নৈকাঠি থেকে আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।